ময়না আকন্দ : জামালপুরে বুধবার সন্ধ্যায় সড়ক দূর্ঘটনায় জামালপুর সদর উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা আফরোজ বেগমের মৃত্যু হয়েছে।

সদর উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসের একাডেমিক সুপারভাইজার হায়দার আলী জানান, আফরোজা বেগম তার মোটর সাইকেলে সদর উপজেলার চরপক্ষিমারী সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা দেখতে নান্দিনা যায়। পরীক্ষা শেষে নান্দিনা সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় পরীক্ষা কেন্দ্র থেকে জামালপুরে ফেরার পথে শরীফপুর নামক এলাকায় মোটর সাইকেলের পিছন থেকে পড়ে যায়। মোটর সাইকেল থেকে পড়ে গিয়ে তিনি আহত হলে তাকে জামালপুর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে তিনি চিকিৎসাধীন অবস্থা জামালপুর জেনারেল হাসপাতালে মারা যায়।

মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা আফরোজা বেগম ২০১৫সালে জামালপুর সদর উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসে যোগদান করেছিলেন। নিহত আফরোজা বেগমের বাড়ি গাজিপুর জেলার কাপাসিয়া এলাকায়।

জামালপুর সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ফরিদা ইয়াসমিন জানান, দাপ্তরিক কাজে আফরোজা বেগম সদরের নান্দিনা গিয়ে ছিলেন। কাজ শেষে জামালপুরে ফেরার পথে সড়ক দূর্ঘটনায় তার মৃত্যু হয়েছে। কর্মজীবনে তিনি খুব কর্তব্যপরায়ন ছিলেন। তিনি সব সময় গরীব, দূঃখী ও অসহায় মানুষের পাশে থেকে তাদের সহযোগিতা করার চেষ্টা করতেন।

জামালপুর সদর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) মাহমুদা বেগম জানান, সহকারী কমিশনার (ভূমি) হিসেবে সদরে যোগদানের পরে মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা আফরোজা বেগমের সাথে পরিচয় হয়। তিনি খুবই সদজন, মিশুক, হাসি-খুশি মানুষ ছিলেন। তিনি তার প্রতিবেশী গরীব দূঃখী মানুষের পাশে থেকে তাদের সহযোগিতা করতেন।

জামালপুর সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রেজাউল করিম খান জানান, সদর উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা সড়ক দূর্ঘটনায় মারা গেছে খবর পেয়ে জেনারেল হাসপাতালে যায়। হাসপাতালে গিয়ে জানতে পারি, তিনি মোটর সাইকেলে করে নান্দিনা থেকে ফেরার পথে মোটরসাইকেলের পিছন থেকে পড়ে গিয়ে মারা গেছে। তবে নিহতের মরাদেহ ময়নাতদন্তের প্রতিবেদনের পরে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।